চট্টগ্রাম মহানগরে ৮৫ হাজার পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার গ্রেফতার ২

0

রাজু আহামেদ, চট্টগ্রাম: বন্দর নগরী চট্টগ্রামের আকবরশাহ থানাধীন মনসুরাবাদ¯’ শ্যামলী পরিবহন এর কাউন্টারের সামনে রাস্তার উপর বিশেষ অভিযান পরিচালনা করে ৮৫,০০০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার; ০২ আসামীকে হাতেনাতে গ্রেফতার করেছে মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ।

গ্রেফতারকৃত আসামী ১) মোঃ এহসান @ নুরুল আলম(২২), পিতা- মোঃ জাফর আলম, মাতা-মৃত মোস্তফা খাতুন, সাং- করাচি পাড়া, সাবরাং ইউনিয়ন(নুরুর বাড়ী), থানা- টেকনাফ, জেলা- কক্সবাজার, বর্তমানে-হাড়িয়াখালী (টেকনাফের শেষ মাথা), নুরুল আলমের বাড়ী, থানা- টেকনাফ, জেলা- কক্সবাজার, ২) রহমতউল্লাহ (২০), পিতা- মৃত গফুর আলম, মাতা- জুলেখা বেগম, সাং- আলীরডেল, সাবরাং ইউনিয়ন(নুর ইসলামের বাড়ী), থানা- টেকনাফ, জেলা- কক্সবাজার।

১৪ জানুয়ারী ২০১৮ ইং তারিখ ভোর ০৬.০০ ঘটিকায় চট্টগ্রাম মহানগর গোয়েন্দা বিভাগের উপ-পুলিশ কমিশনার(ডিবি-বন্দর), জনাব মোহাম্মদ শহীদুল্লাহ (পিপিএম) মহোদয়ের সার্বিক দিক নির্দেশনায় অতিঃ উপ-পুলিশ কমিশনার(ডিবি-পশ্চিম), জনাব এএএম হুমায়ুন কবীর ,সহকারী পুলিশ কমিশনার(ডিবি-পশ্চিম) মহোদয়ের নেতৃত্বে¡ পুলিশ পরিদর্শক জনাব মোঃ মাহবুবুল আলম, সঙ্গীয় এসআই/মোঃ মোমিনুল হাসান, এসআই/মোঃ আকরাম হোসেন, এসআই/মোঃ জাকির হোসেন ভূঁইয়া, এএসআই/সুশীল ও সঙ্গীয় ফোর্স সহ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে আকবরশাহ থানাধীন মনসুরাবাদ¯’ শ্যামলী পরিবহন এর কাউন্টারের সামনে ঢাকাগামী পাকা রাস্তার উপর টেকনাফ হইতে ঢাকাগামী পিকআপ গাড়ীটি যাহার রেজিঃ নং- ঢাকা মেট্রো-ন, ১১-৫৬১৩ তল্লাশীকালে উক্ত গাড়ীতে আসামী’দ্বয়ের সনাক্ত ও নিজহাতে বাহির করিয়া দেওয়ামতে তাহাদের হেফাজতে থাকা পিকআপ গাড়ীর দুইটি চেসিসের ভিতরে অভিনব কায়দায় রক্ষিত বামপাশের চেসিজে ২২টি হলুদ স্কচটেপ দ্বারা মোড়ানো প্যাকেট, প্রতি প্যাকেটে ১০টি নীল রংয়ের বায়ুরোধক (২২ ১০)=২২০টি পলিব্যাগ। প্রতিটি পলিব্যাগে ২০০ পিস করিয়া (২২০*২০০)=৪৪,০০০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট এবং ডান পাশের চেসিসে রক্ষিত ২০টি হলুদ স্কচটেপ দ্বারা মোড়ানো প্যাকেট, প্রতি প্যাকেটে ১০টি নীল রংয়ের বায়ুরোধক (২০*১০)=২০০টি পলিব্যাগ। প্রতিটি পলিব্যাগে ২০০ পিস করিয়া (২০০*২০০)=৪০,০০০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট ও অপর একটি কালো স্কচটেপ দ্বারা মোড়ানো যাহার ভিতর ০৫ টি নীল রংয়ের পলিব্যাগ। প্রতিটি পলিব্যাগে ২০০ পিস করিয়া (২০০*০৫)=১০০০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট সহ র্সবমোট (৪৪,০০০ + ৪০,০০০+১০০০)= ৮৫,০০০/(পঁচাশি হাজার) পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করা হয়। যাহার আনুমানিক মূল্য ২,৫৫,০০,০০০/-(দুই কোটি পঞ্চান্ন লক্ষ) টাকা । যাহা উদ্ধারপূর্বক সকাল ০৭.৪৫ ঘটিকায় জব্দ করা হয়। উক্ত ঘটনায় মোট ০৩(তিন) জনকে আসামী করিয়া নিয়মিত মামলা রুজু প্রক্রিয়াধীন।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেফতারকৃত আসামীদ্বয় উদ্ধারকৃত ইয়াবা ট্যাবলেট পরস্পর যোগসাজসে পলাতক আসামী ৩) নুরুল আমীন(২৬), পিতা- অজ্ঞাত, সাং- আলীরডেল ,সাবরাং ইউনিয়ন, (নুরুল আমীনের বাড়ী), ২নং আসামী রহমত উল্লাহ এর বাড়ীর র্পূব পাশ্বের থানা-টেকনাফ, জেলা- কক্সবাজার এর নিকট হইতে সংগ্রহ করিয়া কক্সবাজার জেলাধীন টেকনাফ হইতে ঢাকা জেলার বিভিন্ন স্থানে বেশী দামে বিক্রয় করার জন্য বহন করিয়া আনিতেছিল বলিয়া স্বীকার করে।

গ্রেফতারকৃত আসামী ০২ জন ও পলাতক আসামী ০১ জনসহ মোট ০৩ জনের বিরুদ্ধে আকবরশাহ থানায় নিয়মিত মামলা রুজু প্রক্রিয়াধীন।

Leave A Reply

Pinterest
Print