নারায়ণগঞ্জে ৭ খুন: র‌্যাবের রুহুল ফের রিমান্ডে

0

7-murder-logoনারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি:
নারায়ণগঞ্জে চাঞ্চল্যকর সাত খুনের ঘটনায় র‌্যাব সদস্য রুহুল আমিনকে তৃতীয় দফায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আট দিনের রিমান্ডে পাঠিয়েছে আদালত। আইনজীবী চন্দন সরকার ও তার গাড়ি চালক ইব্রাহিম হত্যা মামলায় নারায়ণগঞ্জের জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম মনোয়ারা বেগম গতকাল সকালে রুহুলকে রিমান্ডে পাঠানোর আদেশ দেন বলে জানিয়েছেন মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ও জেলা গোয়েন্দা পুলিশের ওসি মামুনুর রশিদ মণ্ডল।
তিনি বলেন, “এ মামলায় র‌্যাব সদস্য রুহুলকে আদালতে হাজির করে ১০ দিনের রিমান্ড আবেদন জানানো হয়। শুনানি শেষে আদালত আট দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।” এর আগে কাউন্সিলর নজরুল ইসলামসহ পাঁচজনকে অপহরণের পর হত্যার ঘটনায় নজরুলের স্ত্রী সেলিনা ইসলাম বিউটির করা মামলায় রুহুল আমিনকে দুই দফায় মোট ১২ দিনের রিমান্ডে নেওয়া হয়। গত ৭ অক্টোবর পটুয়াখালীর বাউফল থেকে ল্যান্স কর্পোরাল রুহুল আমিনকে গ্রেপ্তার করে নারায়ণগঞ্জে আদালতে হাজির করার পর জিজ্ঞাসাবাদের জন্য প্রথম দফায় তাকে সাত দিনের রিমান্ডে পায় পুলিশ। সাত খুনের ঘটনায় নিহতদের পরিবারের পক্ষ থেকে অভিযোগ ওঠার পর প্রায় পাঁচ মাস পলাতক ছিলেন তিনি। গত ২৭ এপ্রিল নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের প্যানেল মেয়র নজরুল, তার বন্ধু মনিরুজ্জামান স্বপন, তাজুল ইসলাম, লিটন, গাড়িচালক জাহাঙ্গীর আলম, আইনজীবী চন্দন কুমার সরকার ও তার গাড়িচালক ইব্রাহীম অপহৃত হন। পরে শীতলক্ষ্যা নদী থেকে তাদের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। এ ঘটনায় ফতুল্লা মডেল থানায় দুটি হত্যা মামলা করে নিহতের স্বজনরা। ওই ঘটনায় এখন পর্যন্ত র‌্যাবের কর্মকর্তাসহ মোট ২৪ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। অপহরণ ও হত্যাকাণ্ডের বর্ণনা দিয়ে তিন র‌্যাব কর্মকর্তাসহ ১২ জন আদালতে দোষ স্বীকার করে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দেন। এছাড়াও ঘটনার সাক্ষী হিসেবে ১৪ জন আদালতে জবানবন্দি দিয়েছেন।

Leave A Reply

Pinterest
Print