রাজৈরে ভ্রাম্যমান আদালতে এক ভুয়া চিকিৎসককে দেড় বছরের সাজা।

0

rajoir-news-01-12-16রাজৈর (মাদরীপুর) সংবাদদাতা ঃমাদারীপুরের রাজৈর উপজেলার টেকেরহাট জেনারেল হাসপাতাল বুধবার সন্ধ্যায় আনোয়ার হোসেন পাশা নামে এক ভূয়া বিশেজ্ঞ চিকিসককে গ্রেফতার কওে মাদারীপুর র‌্যাব-৮ এর সদস্যরা। সন্ধ্যা ৭ টার দিকে ভূয়া বিশেজ্ঞ চিকিৎসক আনোয়ার হোসেন পাশাকে দেড় বছরের কারাদন্ড দিয়েছে মাদারীপুর ভ্রাম্যমান আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট রোজী আকতার।
জানা যায়রাজৈর (মাদরীপুর) সংবাদদাতা ঃমাদারীপুরের রাজৈর উপজেলার টেকেরহাট জেনারেল হাসপাতাল বুধবার সন্ধ্যায় আনোয়ার হোসেন পাশা নামে এক ভূয়া বিশেজ্ঞ চিকিৎসককে গ্রেফতার কওে মাদারীপুর র‌্যাব-৮ এর সদস্যরা। সন্ধ্যা ৭ টার দিকে ভূয়া বিশেজ্ঞ চিকিৎসক আনোয়ার হোসেন পাশাকে দেড় বছরের কারাদন্ড দিয়েছে মাদারীপুর ভ্রাম্যমান আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট রোজী আকতার। বুধবার(৩০-১১-১৬) সন্ধ্যায় মাদারীপুর র‌্যাব -৮ সদস্যরা গোপন সুত্রে খবর পেয়ে টেকেরহাট বন্দরের (লঞ্চ ঘাট সংলগ্ন) জেনারেল হাসপাতাল(প্রাঃ)ও জননী ডায়াগনিস্টিক সেন্টারে একজন প্যারা মেডিক্যাল চিকিৎসক এমবিএিস এবং চর্ম ও যৌন বিশেষজ্ঞ সেজে রোগীকে ভুল চিকিৎসা প্রদান করছে। রোগী সেজে ভূয়া ডাক্তারের কাছে চিকিৎসা নিতে গিয়ে হাতে নাতে ডাঃ আনোয়ার হোসেন পাশাকে র‌্যাব-৮ এর আভিযানিক দল গ্রেফতার করে ডাঃ মোঃ আনোয়ার হোসেন পাশা ঢাকার দক্ষিণ কেরানীগঞ্জের মালিহাটা এলাকার আকবর হোসেনের ছেলে। জিজ্ঞাসাবাদে র‌্যাবের কাছে আনোয়ার হোসেন পাশা একজন প্যারা মেডিকেল চিকিৎসক বলে স্বীকার করেন এবং দীর্ঘদিন যাবৎ মানুষকে ভুল চিকিৎসা দিয়ে আসছে। তার কাছ থেকে তার নামীয় সীল ও কিছু কাগজ পত্র জব্দ করা হয়। ভুল চিকিৎসা প্রদানের দায়ে ভ্রাম্যমান আদালতের নির্বাহী মেজিস্ট্রেট রোজী আকতার মেডিক্যাল এবং ডেন্টাল কাউন্সিল আইন ২০১০ এর ২৮ ধারায় অপরাধ করায় আসামীকে ১ বৎসর ০৬ মাস বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করেন।আসামীকে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।####

 

Leave A Reply

Pinterest
Print