সুচির ‘ফ্রিডম অব অক্সফোর্ড’ সম্মাননা প্রত্যাহার

0

রোহিঙ্গা শরণার্থী সংকটের প্রেক্ষিতে মিয়ানমারের নেত্রী অং সান সুচিকে দেয়া সম্মাননা ‘ফ্রিডম অব অক্সফোর্ড’ প্রত্যাহার করা হচ্ছে। ১৯৯৭ সালে গণতন্ত্রের জন্য দীর্ঘ সংগ্রামের জন্য তাকে এই সম্মাননা দেয় অক্সফোর্ড সিটি কাউন্সিল।

কিন্তু অক্সফোর্ড সিটি কাউন্সিল জানিয়েছে, মিয়ানমারের নেত্রীর জন্য এই সম্মাননা যথোপযুক্ত নয়। গত ২৫ আগস্ট মিয়ানমারের রাখাইনে নতুন করে সংঘাত শুরু হওয়ার পরে বাংলাদেশে ৫ লাখ রোহিঙ্গা পালিয়ে এসেছে। সামরিক জান্তার নিয়ন্ত্রণাধীন মিয়ানমারে গণতন্ত্রের জন্য সংগ্রামের কারণে অং সান সুচি দীর্ঘদিন ইয়াংগুনে গৃহবন্দী ছিলেন। এজন্য তিনি ও তার ন্যাশনাল লিগ ফর ডেমোক্রেসি স্বাধীনতা ও গণতন্ত্রের প্রতীক হিসেবে বিবেচিত হতে থাকেন। ২০১৫ সালে উন্মুক্ত নির্বাচনের মাধ্যমে তার দল সরকার গঠন করে।

কিন্তু সম্প্রতি রাখাইনে রোহিঙ্গাদের উপর শুরু হওয়া নতুন সংঘাত ও সামরিক বাহিনীর বিরুদ্ধে জাতিগত নিধনের অভিযোগের বিষয়ে নিশ্চুপ থাকায় আন্তর্জাতিক নেতৃত্ব ও সংস্থা তার সমালোচনা করেছে। সোমবার অক্সফোর্ড সিটি কাউন্সিলের বৈঠকে সিদ্ধান্ত নেয়া হয় যে, জাতিসংঘের কাছ থেকে যেসব তথ্যপ্রমাণ আসছে তাতে অং সান সুচি আর ‘ফ্রিডম অব অক্সফোর্ড’ সম্মাননার জন্য যথোপযুক্ত নন। আগামী মাসের বিশেষ বৈঠকে আনুষ্ঠানিকভাবে এই সম্মাননা প্রত্যাহার করা হবে, তবে মিয়ানমারের পরিস্থিতির উন্নতি হলে এই সিদ্ধান্তের বদল হতে পারে।

এর আগে জানা যায়, অক্সফোর্ডের সেন্ট হিউ কলেজ সুচির একটি পোট্রেট প্রদর্শনী থেকে প্রত্যাহার করে নেয়। বিবিসি।

Leave A Reply

Pinterest
Print