উইম্বলডনে ইন্দ্রপতন

0
55

স্পোর্টস ডেস্ক:
ছেলেদের টেনিসে ফেভারিটরা এগিয়ে চলছেন আপন গতিতে। যা গড়বড় বেধে যাচ্ছে মেয়েদের টেনিসে। উইম্বলডন শুরুর দ্বিতীয় দিনই বিদায় নিয়েছিলেন শীর্ষস্থানীয় খেলোয়াড় সিমোনা হালেপ। পোষাক বিতর্কে ছিটকে গেছেন ইউজিনি বুশার্ড। দ্বিতীয় দিনের আলোচিত ঘটনা ছিল এই দুটি। তবে তৃতীয় দিন এসে ঘটলো আরকেটি তারকা পতন। দ্বিতীয় রাউন্ড থেকেই হতাশাজনক বিদায় ঘটেছে সার্বিয়ান টেনিস সুন্দরী আনা ইভনোভিচের। গ্যালারিতে প্রেমিক, জার্মান জাতীয় দলের ফুটবলার আস্তেইন শোয়েনস্টাইগার উপস্থিত থেকে সারাক্ষণ উৎসাহ জুগিয়ে যাওয়ার পরও বিদায় নিতে হলো ইভানোভিচকে। তবে হারেরও একটা মাত্রা থাকে। সাবেক ফ্রেঞ্চ চ্যাম্পিয়ন এবং সাবেক নাম্বার ওয়ান ইভানোভিচের হারটা কোনভাবেই মেনি নিতে পারছে না তার ভক্তরা। বিশ্বের সাত নম্বর বাছাই ইভানোভিচ হেরেছেন ১৫৮ নম্বর র‌্যাঙ্কধারী বিথানি মাটেকের কাছে। তাও সরাসরি ৬-৩, ৬-৪ সেটে। ইভানোভিচ সাত বছর আগে রোলাঁ গারো থেকে ফ্রেঞ্চ ওপেনের শিরোপা জয়ের পর এবারই যা একটু ভালো করেছিলেন ইভানোভিচ। মাস খানেক আগে শেষ হওয়া ফ্রেঞ্চ ওপেনের সেমিফাইনাল খেলেছিলেন তিনি। উইম্বলডনেও সেরা সাফল্য সেমিফাইনাল। তবুও, আনা ইভানোভিচকে শিরোপার অন্যতম দাবিদার ধরা হয় সব সময়। উইম্বলডনের দ্বিতীয় রাউন্ডে মাত্র তৃতীয়বারের মত খেলছেন মার্কিন মেয়ে বিথানি মাটেক। ১৫৮ নম্বর বাছাইয়ের বিপক্ষে বুধবার রাতে খেলতে নেমে শুরু তেকেই বেকায়দায় ছিলেন আনা। ম্যাচ শেষে আনা ইভানোভিচের প্রেমিক শোয়েনস্টাইগার বলেন, ‘সে (আনা) ছিল খুবই আগ্রাসী, গতিশীল এবং প্রথম থেকেই আক্রমণাÍক। আমি দেখলাম ফোরহ্যান্ড সাইড থেকে প্রচুর ভালো ভালো শট খেলছে সে। কিন্তু একই সঙ্গে বেশ কিছু ভুলও করে ফেলেছে। যে কারণে নিজের ধারাবাহিকতাটা আর ধরে রাখতে পারেনি।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here