Bangladesherpatro.com

ফেইসবুকের বিরুদ্ধে করা মামলা চালিয়ে যেতে চায় এফটিসি

প্রযুক্তি ডেস্ক
মার্কিন ফেডারেল আদালতের কাছে ফেইসবুকের বিরুদ্ধে করা অ্যান্টিট্রাস্ট মামলা চালিয়ে যাওয়ার অনুমতি চেয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের ফেডারেল ট্রেড কমিশন (এফটিসি)। ফেইসবুক “নতুন প্রতিযোগীদের প্রতি বিদ্বেষমূলক আচরণ করে বাজার প্রতিযোগিতায় হস্তক্ষেপ করেছে” বলে অভিযোগ তুলেছে যুক্তরাষ্ট্রের নির্বাহী সংস্থাটি।
অগাস্ট মাসে ফেইসবুকের বিরুদ্ধে অ্যান্টিট্রাস্ট মামলা নতুন করে সাজিয়েছে এফটিসি। ফেইসবুক কীভাবে বাজারের নতুন প্রতিযোগীকে আঁতুরঘরেই “পিষে ফেলে” অথবা কিনে ফেলে তার বিস্তারিত এবার যোগ হয়েছে অভিযোগে। সমাধান হিসেবে বিচারকের কাছে প্রতিষ্ঠানটিকে ইনস্টাগ্রাম ও হোয়াটসঅ্যাপ বিক্রি করতে বাধ্য করার আবেদন করেছে এফটিসি।

রয়টার্স বলছে, টানা কয়েক দশকের মধ্যে কোনো মার্কিন প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে এফটিসির সবচেয়ে কঠোর পদক্ষেপ এটি। ‘বিগ টেক’ হিসেবে পরিচিত প্রতিষ্ঠানগুলোর বাজার ক্ষমতা নিয়ন্ত্রণে আনার লক্ষ্যে মামলাটির উপর ওয়াশিংটন “কাছ থেকে নজর রাখছে” বলে জানিয়েছে বার্তাসংস্থাটি।

ওয়াশিংটন ডিসি’র আদালতে দাখিল করা নথিপত্রে এফটিসি বলেছে, এক দশকেরও বেশি সময় ধরে বাজারের ৭০ শতাংশের বেশি দখলে রেখেছে ফেইসবুক। বলা হচ্ছে, বাজারে একচেটিয়া অবস্থা প্রতিষ্ঠা করার জন্য যতোটুকু একটি প্রতিষ্ঠানের দখলে থাকা প্রয়োজন, ফেইসবুক দীর্ঘ দিন ধরেই তার থেকে বেশি কুক্ষিগত করে বসে আছে। এফটিসি’র অভিযোগ, বাজারে আধিপত্য প্রতিষ্ঠা করার লক্ষ্যেই ফটো-শেয়ারিং অ্যাপ ইনস্টাগ্রাম ও মেসেজিং অ্যাপ হোয়াটসঅ্যাপ কিনে নিয়েছিল ফেইসবুক।

তবে এফটিসি’র অভিযোগ মানতে নারাজ মেটা।

“এফটিসি আবারও মনোপলি মামলা দায়ের করেছে কোনো একচেটিয়া ব্যবসায়ী ছাড়াই। তাদের দাবিগুলো এই বাস্তবতাকে এড়িয়ে গেছে যে, মানুষ কীভাবে তথ্য শেয়ার করবে, সংযুক্ত হবে, যোগাযোগ করবে সে ক্ষেত্রে তাদের অনেক কিছু থেকে বেছে নাওয়ার সুযোগ আছে। তাদের দ্বিতীয় অভিযোগটিও প্রথমটির মতো নাকচ হয়ে যাওয়া উচিত।”– এক আনুষ্ঠানিক বিবৃতিতে বলেছেন এক মেটা মুখপাত্র।

Leave A Reply

Your email address will not be published.