খালেদা জিয়া চুরি করেনি – বঙ্গবীর

কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের সভাপতি বঙ্গবীর কাদের সিদ্দিকী বীর উত্তম বিএনপির সমালোচনা ও খালেদা জিয়ার ব্যাপারে বলেছেন, ‘তিনি চুরি করে নাই। রাজনৈতিক কারণে খালেদা জিয়া বাইরে থাকলে সরকারের অসুবিধা তাই তাকে জেলে রাখা হয়েছে। ‘

এছাড়া খালেদা জিয়ার ডিভিশনের ব্যাপারে মন্তব্য করে বঙ্গবীর বলেন, ‘আমি যদি হাকিম হতাম তবে খালেদা জিয়াকে যে মুহুর্তে জেলে নেয়া হয়েছে সেই মুহুর্তে তাকে ডিভিশন দিতাম। তিনি বীর উত্তম জিয়াউর রহমানের স্ত্রী, একজন বীর মুক্তিযোদ্ধার স্ত্রী, দেশের প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী তিনি কেন ডিভিশন পাবেন না তার জন্য কেন ডিভিশন চাইতে হবে। তিনি যতদিন বেঁচে থাকবেন জেলে থাকলে ডিভিশন পাবেন বাইরে থাকলে সম্মান পাবেন।’

গতকাল শনিবার সন্ধ্যায় টাঙ্গাইলের সখীপুর উপজেলার বহেড়াতৈল গণ উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে আয়োজিত জনসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন বঙ্গবীর কাদের সিদ্দিকী ।

এসময় আওয়ামী লীগের সমালোচনা করে তিনি বলেন, ‘সরকার সুষ্ঠু নির্বাচন দিলে আওয়ামী লীগ আগামী নির্বাচনে ২০টি আসনও পাবে না। আর ২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারির মতো আওয়ামী লীগ ভোট চুরি করে সরকার গঠন করলে পাঁচ মাসও ক্ষমতায় টিকতে পারবে না।’

বিএনপির উদ্দেশ্যে তিনি আরও বলেন, বিএনপিতে কোনো পুরুষ নাই, সবাই কাপুরুষ। একজনই পুরুষ আছে, তিনি হলেন খালেদা জিয়া।
তোমরা রাজাকার নিয়ে অগ্রসর হতে পারবেনা। তোমাদের দল নিয়ে তোমরা রাজনীতি কর।

বর্তমানে মুক্তিযোদ্ধাদের বেচাকেনা চলছে, কে রাজাকার আর কে মুক্তিযোদ্ধা এসবের তালিকা প্রণয়ন নিয়েও চলছে নানামুখি জটিলতা বলে মন্তব্য করেছেন কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের সভাপতি বঙ্গবীর কাদের সিদ্দিকী বীর উত্তম। এছাড়াও এ বছরের মধ্যে মুক্তিযোদ্ধাদের ভাতা মাসে ৫০ হাজার টাকা হওয়ার কথাও বলেন তিনি। তিনি তাদের আরও সম্মানিত করার দরকার আছে জানিয়ে আগামী ৫ বছরের মধ্যে মুক্তিযোদ্ধাদের ভাতা এক লাখ টাকায় উন্নীত হতে পারে বলে সরকারের প্রতি দাবি জানিয়েছেন।

এতে সভাপতিত্ব করেন ইউনিয়ন শাখার সভাপতি আফাজ উদ্দিন। এ সময় বক্তব্য রাখেন দলটির কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক হাবিবুর রহমান বীর প্রতীক, জেলা কমিটির সভাপতি অ্যাডভোকেট রফিকুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক এএইচএম আবদুল হাই, কেন্দ্রীয় ছাত্র আন্দোলনের সভাপতি হাবিবুন নবী সোহেল, উপজেলা কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের সভাপতি আতাউর রহমান প্রমুখ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here